শিশুর বিকাশে পরিবারের করণীয়

শিশুর বিকাশে পরিবারের করণীয়

শিশু আর খেলার মাঝে রয়েছে এক নিবিড় সম্পর্ক। একজন শিশুর মনোগত গুণগুরো ও ব্যক্তিগত বৈশিষ্ট্যগুলো সবচেয়ে নিবিড়ভাবে বিকশিত হয় খেলাভিত্তিক কাজকর্মে। অন্য ধরনের যেসব কাজ পরে নিজস্ব এক গুরুত্ব অর্জন করে, সেগুলোও গড়ে ওঠে শিশুর খেলার সময়ে, খেলা স্বতঃপ্রণোদিত মনোজগত প্রক্রিয়াগুলোর গঠনকে প্রভাবিত করে। খেলার মধ্যে, স্বতঃপ্রণোদিত মনোযোগ ও স্বতঃপ্রণোদিত স্মৃতিশক্তি বিকাশ লাভ করতে শুরু করে। বিশেষভাবে আয়োজিত পরিস্থিতির তুলনায় খেলার পরিস্থিতিতে শিশুরা আরো ভালোভাবে মনোনিবেশ করে এবং আরো বেশি স্মরণে রাখে। শিশুর পক্ষে একটা সচেতন  লক্ষ্য বেছে নেয়াটা খেলার মধ্যেই সবচেয়ে আগে ও সবচেয়ে সহজে হয়। Continue reading “শিশুর বিকাশে পরিবারের করণীয়”

শিশুর স্মৃতিশক্তি

শিশুর স্মৃতিশক্তি

অনেক অভিভাবক অনুযোগ করে থাকেন তাদের শিশুরা রীতিমতো পড়াশোনা করছে এবং শিখছেও। কিন্তু এ শেখা ক্ষণস্থায়ী। অল্প সময়ের মধ্যেই তা ভুলে যাচ্ছে। তা হলে কি ধরে নিতে হবে শিশুর স্মৃতিশক্তি দুর্বল ? এই দুর্বল স্মৃতিশক্তিকে কি ছড়িয়ে সতেজ করা যায় না ? এক কথায় এ প্রশ্নের জবাব না দিয়ে বাস্তব অভিজ্ঞতা থেকে বিষয়টার সংক্ষিপ্ত বিশ্লেষণে প্রবেশ করছি। আসলে স্মৃতিশক্তি জিনিস টা কী ? সোজা কথায় অধীত ও অভিজ্ঞতালব্দ কোনও কিছু মনে ধারণ করার ক্ষমতাকে স্মৃতিশক্তি বলা যেতে পারে। Continue reading “শিশুর স্মৃতিশক্তি”